লক্ষিপাশা ইউনিয়নের ছাত্রলীগের কমিটি গঠন, ত্যাগীদের মূল্যায়ন না করার ‘অভিযোগ, পদত্যাগের হুমকি

admin
  • আপডেট টাইম : ফেব্রুয়ারি ১৬ ২০২৪, ০৭:০৪
  • 521 বার পঠিত
লক্ষিপাশা ইউনিয়নের ছাত্রলীগের কমিটি গঠন, ত্যাগীদের মূল্যায়ন না করার ‘অভিযোগ, পদত্যাগের হুমকি

মিম টিভি ডেস্ক:

গোলাপগঞ্জে লক্ষিপাশা ইউনিয়ন ছাত্রলীগের কমিটি দীর্ঘদিন গঠন করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি তাজুল ইসলাম ও সাধারণ সম্পাদক মান্না আহমদ স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে নতুন কমিটি প্রকাশ করা হয়।

দীর্ঘদিন পর কমিটি ঘোষণা করা হলেও স্থানীয় ছাত্রলীগের ত্যাগী নেতাকর্মীরা এই কমিটিতে ত্যাগীদের মূল্যায়ন না করার অভিযোগ করেছেন। এতে করে অনেক নেতাকর্মী এই কমিটির প্রতি ক্ষোভ প্রকাশ করছেন। এমনকি এই কমিটিতে ঠাঁই পাওয়া অনেক নেতাকর্মীও প্রটোকল ও সিনিয়র জুনিয়র না মেনে খেয়াল খুশি মতো কমিটি দেওয়ারও অভিযোগ করেছেন। ইতিমধ্যে এই কমিটিতে জায়গা পাওয়া সদস্য রিপন বিশ্বাস পদত্যাগ করেছেন। এছাড়াও এ কমিটির অনেকেই পদত্যাগ করার হুমকিও দিচ্ছেন।

এ ব্যাপারে গোলাপগঞ্জ উপজেলা ছাত্রলীগের সহ সভাপতি মাহবুব আহমদ জানান, দীর্ঘদিন পর লক্ষিপাশা ইউনিয়ন ছাত্রলীগের কমিটি গঠন করা হয়েছে। নেতাকর্মীরা খুশি হওয়ার কথা কিন্তু পদত্যাগ করে এই কমিটির প্রতিবাদ জানাচ্ছে। এটা দুঃখজনক। সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক নিজেদের মন মত এই কমিটি গঠন করেছেন। উচিত ছিল উপজেলা ছাত্রলীগের সকল দায়িত্বশীলদের নিয়ে পরামর্শ অনুযায়ী কমিটি করা। কিন্তু তারা তাদের খেয়াল খুশিমতো কারো মতামত না নিয়েই এই কমিটি গঠন করেছেন।

তিনি উপজেলা ছাত্রলীগের কার্যক্রমের স্থবিরতা নিয়েও ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, উপজেলা ছাত্রলীগের পূর্ণাঙ্গ কমিটি গঠন করার পর একটি পরিচিতি সভা হয়েছিল। এরপর থেকে এখন পর্যন্ত একটি সাধারণ সভাও হয়নি।

নাম প্রকাশ না করার শর্তে, লক্ষিপাশা ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক পদ প্রত্যাশী একজন জানান, এক সময় ফার্মেসীতে কাজ করা সৌরভকে দিয়ে কমিটি গঠন করা হয়েছে। সৌরভের ছাত্রত্বও নেই চ্যালেঞ্জ করে নিয়ে বলতে পারি। সে মাধ্যমিকের গন্ডিও পের হতে পারে নি। এছাড়া সৌরভের পরিবারের সবাই জামাত-বিএনপির সমর্থক।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক লক্ষিপাশা ইউনিয়নের বেশ কয়েকজন নেতাকর্মী জানান, দীর্ঘদিন পর লক্ষিপাশা ইউনিয়নের কমিটি গঠন করা হয়েছে। এটাতে আমরা খুশি হওয়ার কথা কিন্তু এই কমিটিতে ত্যাগীদের মূল্যায়ন করা হয়নি। এছাড়াও সিনিয়র জুনিয়রও মানা হয়নি। অনেক নেতাকর্মী সভাপতি সাধারণ সম্পাদক প্রার্থী ছিলেন। তাদের অনেককেরই স্থান এই কমিটিতে হয়নি।

এ ব্যাপারে গোলাপগঞ্জ উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি তাজুল ইসলাম ও সাধারণ সম্পাদক মান্না আহমদের সাথে যোগাযোগ করার চেষ্টা করেও তাদের পাওয়া যায়নি।

0Shares
এই ক্যাটাগরীর আরো খবর