আমার হবিগঞ্জ পত্রিকার ডিক্লারেশন বাতিলের দাবীতে ছাত্রলীগের বিক্ষোভ ও   স্মারকলিপি

admin
  • আপডেট টাইম : সেপ্টেম্বর ২২ ২০২২, ২১:৩১
  • 522 বার পঠিত
আমার হবিগঞ্জ পত্রিকার ডিক্লারেশন বাতিলের দাবীতে ছাত্রলীগের বিক্ষোভ ও   স্মারকলিপি

নিজস্ব প্রতিবেদক \ দৈনিক আমার হবিগঞ্জ পত্রিকার ডিক্লারেশন বাতিল ও পত্রিকার সম্পাদক সুশান্ত দাশ গুপ্তের অপকর্মের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহনের দাবীতে বিক্ষোভ মিছিল ও স্মারকলিপি প্রদান করেছে হবিগঞ্জ জেলা ছাত্রলীগ। গতকাল বৃহস্পতিবার দুপুরে হবিগঞ্জ শহরে বিক্ষোভ মিছিল ও জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের সামনে প্রতিবাদ সভা অনুষ্ঠিত হয়। পরে ছাত্রলীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক স্বাক্ষরিত স্মারকলিপি জেলা প্রশাসক ইশরাত জাহানের কাছে প্রদান করা হয়। এ সময় উপস্থিত ছিলেন জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট আলমগীর চৌধুরী, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও হবিগঞ্জ পৌরসভার মেয়র আতাউর রহমান সেলিম, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মোঃ আব্দুর রহমান, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও সাবেক জেলা পরিষদের সদস্য মোঃ আব্দুল মুকিত, জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি মোশারফ হোসেন আরিফ বাপ্পী, সাধারণ সম্পাদক মোঃ ফয়জুর রহমান রবিন, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক হামিদুর রহমান জুনু, হবিগঞ্জ সদর উপজেলা ছাত্রলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি তৌহিদুল ইসলাম সোহেল ও পৌর ছাত্রলীগের সিনিয়র যুগ্ম আহবায়ক বিজন দাশসহ আওয়ামীলীগ ও অঙ্গ ও সহযোগি সংগঠনের নেতৃবৃন্দ।
স্মারকলিপিতে বলা হয়, ‘হবিগঞ্জ-৩ আসনের সংসদ সদস্য ও জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আলহাজ্ব এডভোকেট মোঃ আবু জাহিরের নেতৃত্বে জেলায় বড় বড় উন্নয়ন সাধিত হচ্ছে। পাশাপাশি তার নেতৃত্বে আওয়ামী লীগ ও অঙ্গ ও সহযোগি সংগঠন দলীয় ভাবে সু-সংগঠিত। কিন্তু ইদানিং সুশান্ত দাশ গুপ্ত নামে এক বিতর্কিত ব্যক্তি ‘আমার হবিগঞ্জ নামে একটি সংবাদ পত্র প্রকাশ করে জামায়াত ও বিএনপির সাথে আঁতাত করে জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এডভোকেট আবু জাহির এমপিসহ জেলা গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ, আওয়ামী পরিবারের নেতৃবৃন্দ, সরকারী কর্মকর্তা-কর্মচারী এবং বিভিন্ন সংগঠনের বিরুদ্ধে একের পর এক মিথ্যা সংবাদ প্রকাশ করে আসছে। ইংল্যান্ড প্রবাসী হয়ে সুশান্ত দাশ বিভিন্ন মামলার গ্রেফতারী পরোয়ানা নিয়ে লন্ডনে আত্মগোপন করে সে ওই পত্রিকা প্রকাশ করছে। গত ২১ সেপ্টেম্বর দৈনিক আমার হবিগঞ্জ পত্রিকায় ‘আবু জাহির এমপি’র মাদক সিন্ডিকেটের মূল হোতা, সাবেক ছাত্রদলের কর্মী পৌর ছাত্রলীগের যুগ্ম আহবায়ক সুজন ভারতীয় মদসহ গ্রেফতার’ শিরোনামে একটি বিতর্কিত সংবাদ লিড নিউজ আকারে প্রকাশ করে। এতে সে আবু জাহির এমপিকে মাদক সিন্ডিকেটের মূল হোতা হিসেবে উল্লেখ করে। কোন ধরণের তথ্য প্রমান ছাড়াই এমপি আবু জাহিরের সাথে সুজন ভট্টাচার্যের ছবি থাকার তথ্য দিয়েই এবং সাংবাদিকতার নীতিমালা অনুযায়ী এমপি আবু জাহিরের বক্তব্য না নিয়েই সংবাদ প্রকাশের মাধ্যমে বর্তমান সরকার এবং আওয়ামী লীগের ভাবমূর্তি চরমভাবে ক্ষুন্ন করার অপচেষ্টা করা হয়েছে। সুশান্ত দাশ গুপ্ত আমার হবিগঞ্জ পত্রিকার ছবি ব্যবহার করে যেভাবে হলুদ সাংবাদিকতা করে আসছে তাহা নিন্দনীয় এবং গুরুতর অপরাধের সামিল। ইতিপূর্বে আমার হবিগঞ্জ পত্রিকার সাংবাদিক ঝলক চৌধুরী মাদকসহ চুনারুঘাটে গ্রেফতার হয়েছে। এ সময় সুশান্ত দাশ গুপ্ত তাকে ছাড়িয়ে আনতে চেষ্টা করে ব্যর্থ হয়েছে এবং আমার হবিগঞ্জ পত্রিকার বার্তা সম্পাদক তারেক হাবিব গ্রেফতারী পরোয়ানা নিয়ে ঝলককে ছাড়িয়ে আনতে গিয়ে পুলিশের হাতে গ্রেফতার হয়েছে। সুশান্ত দাশ গুপ্ত এবং আমার হবিগঞ্জ পত্রিকার কর্মকাÐে আওয়ামী লীগের রাজনীতিতে নেতিবাচক প্রভাব পড়েছে। এতে করে দল এবং সরকার ক্ষতিগ্রস্থ হচ্ছে’। স্মারকলিপিতে সুশান্ত দাশ গুপ্তের বিতর্কিত কর্মকাÐের বিচার এবং নীতিমালা ভঙ্গ করে মানহানীকর ও মিথ্যা সংবাদ প্রকাশের অপরাধে দৈনিক আমার হবিগঞ্জ পত্রিকার ডিক্লারেশন বাতিলের জন্য জেলা প্রশাসকের কাছে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহনের দাবী জানানো হয়।

0Shares
এই ক্যাটাগরীর আরো খবর